ফতুল্লায় অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে নগদ টাকা ও ঢেউটিন বিতরণ

0
31
ফতুল্লায় অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে নগদ টাকা ও ঢেউটিন বিতরণ

ফতুল্লা প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থ স্থান পরিদর্শন করেছেন নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার নির্বাহী অফিসার নাহিদা বারিক ও ফতুল্লা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার লুৎফর রহমান স্বপন। ১৭ জুন সোমবার দুপুর ৩টায় অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থ স্থান পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে নগদ টাকা ও ঢেউটিন বিতরণ করা হয়েছে।

এ সময় উপস্থিত অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থ ও এলাকাবাসীর উদ্দেশ্যে নাহিদা বারিক বলেন, আমি আপনাদের কথা শুনে এখানে এসেছি। আপনাদের যে ক্ষতি হয়েছে তা সহজে পূরণীয় নয়। আপনাদের ব্যাপক ক্ষতিতে আমি দুঃখ প্রকাশ ও সহানুভূতি জানাচ্ছি। তিনি এসময় ক্ষতিগ্রস্থ দোকানীদের উদ্দেশ্যে আরো বলেন, আপনারা সবসময় সতর্ক থাকবেন। প্রতিদিন দোকান বন্ধ করার সময় দোকানের বৈদ্যুতিক লাইনগুলো চেক করবেন। আপনাদের পাশে দোকানদার ভাইদেরও এবিষয়ে সতর্ক থাকতে বলবেন। নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা দূর্যোগ ব্যবস্থাপনার পক্ষ থেকে যতটুকু সম্ভব আমি সহযোগিতা করছি।

ফতুল্লায় অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে নগদ টাকা ও ঢেউটিন বিতরণ

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার দূর্যোগ ব্যবস্থাপনার পক্ষ থেকে ক্ষতিগ্রস্থ ৪টি দোকানের প্রত্যেক দোকানীকে নগদ ৯ হাজার টাকা ও ৩ বান্ডিল ঢেউটিন প্রদান করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদা বারিক। এছাড়াও ফতুল্লা ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে প্রত্যেক দোকানীকে নগদ ৫ হাজার টাকা প্রদান ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার লুৎফর রহমান স্বপন। এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন, ফতুল্লা রিপোর্টার্স ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী আনিসুর রহমান, কবি এস এ শামীম, সাজু, রাকিব চৌধুরী শিশির, মোঃ নুর আমিন প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ফতুল্লা বাজারের পশ্চিম পাশের প্রাইমারী স্কুল সংলগ্ন একটি মার্কেটের কোন একটি দোকান হতে শর্ট রবিবার রাত আনুমানিক পৌনে ১টায় অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। এতে আশেপাশের দোকানগুলোতে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। এর ফলে মিজানুর রহমানের ফুড কর্ণারের দোকান, মোঃ সুজনের ফোন ফ্যাক্স ও মোবাইল সার্ভিসিংয়ের দোকান, মোঃ আছাদের ফার্মেসী ও গৌতমের সেলুন পুড়ে ছাই হয়ে যায়। পরে সংবাদ পেয়ে ফতুল্লার বিসিক ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট দ্রুত ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। অগ্নিকান্ডে আনুমানিক ২৪ লাখ টাকার পরিমাণ মালামালের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। অগ্নিকান্ডে কোন ধরণের হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।